ব্লগ

ক্রিকেট হাইলাইটস, ৯ জুলাই: ইংল্যান্ড বনাম ভারত (২য় টি২০)

ইংল্যান্ড বনাম ভারত 2nd T20I Highlights

ইংল্যান্ড বনাম ভারত (২য় টি২০) – হাইলাইটস

বার্মিংহামে তিন ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে গ্লিসনের আগুন বোলিংয়ের পর ও শেষ রক্ষা করতে পারল না ইংল্যান্ড। গতকাল শনিবার ২য় টি২০ তে মুখোমুখি হয়েছিল ভারত ও ইংল্যান্ড। গ্লিসনের আগুন বোলিংএর বিপক্ষে লড়াই করেছেন রবিন্দ্র জাদেজা। তার ২৯ বলে ৪৬ রানের অপরাজিত ইনিংসের সুবাদে ৮ উইকেটে ১৭০ রান করতে পেরেছে ভারত। অর্থাৎ ১৭১ রান করলেই সিরিজে সমতা ফেরাবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। কিন্তু তার আগেই ১২১ রানে ইংল্যান্ড-এর সব খেলোয়াড় গুটিয়ে যায়।

ম্যাচে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ভারতকে ঝড়ো সূচনাই এনে দেন অধিনায়ক রোহিত শর্মা ও উইকেটরক্ষক ব্যাটার রিশাভ পান্ত। দুজনের উদ্বোধনী জুটিতে ৪.৫ ওভারে আসে ৪৯ রান। ইনিংসের পঞ্চম ওভারে প্রথমবার আক্রমণে এসেই রোহিতকে দ্রেসসিংরুমে ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন গ্লিসন। আউট হওয়ার আগে তিন চার ও দুই ছয়ের মারে ২০ বলে ৩১ রান করেন রোহিত। 

এরপর আরও আক্রমণাত্মক হয়ে উঠে গ্লিসন। নিজের পরের ওভারে পরপর দুই বলে পান্ত ও বিরাট কোহলিকে আউট করেন গ্লিসন। খারাপ দশা যেন পিছুই ছাড়ছে না বিরাটের। কোহলি করেন ৩ বলে ১ রান। আক্রমণাত্মক শট করে গিয়ে থামেন ১৫ বলে ২৬ রান করা পান্ত।

এরপর সূর্যকুমার যাদব (১১ বলে ১৫), হার্দিক পান্ডিয়া (১৫ বলে ১২) ও দিনেশ কার্তিকরা (১৭ বলে ১২) হতাশ করেন। মাত্র ৮৯ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকে ভারত। সেখান থেকে জাদেজার ৫ চারের মারে খেলা ২৯ বলে ৪৬ রানের ইনিংস ভারতকে পৌঁছে দেয় ১৭০ রানে।

ইংল্যান্ডের তৃতীয় বয়স্ক খেলোয়াড় হিসেবে ৩৪ বছর ২১৯ দিন বয়সে টি-টোয়েন্টি অভিষেক হয়েছে রিচার্ড গ্লিসনের। আর অভিষেকেই ভারতের ব্যাটারদের কঠিন পরীক্ষা নিয়েছেন এ ডানহাতি পেসার। তার তোপে পড়ে শেষ হয়ে যায় ভারতের বড় সংগ্রহের আশা।

অভিষিক্ত গ্লিসন ৪ ওভারে এক মেইডেনসহ মাত্র ১৫ রান খরচায় নিয়েছেন তিনটি উইকেট। যা ইংল্যান্ডের হয়ে এই ফরম্যাটে অভিষেক ম্যাচে দ্বিতীয় সেরা বোলিংয়ের রেকর্ড। এছাড়া ক্রিস জর্ডান ২৭ রান খরচায় নিয়েছেন চারটি উইকেট।

রান তাড়ায় আবারও ভারতের দুর্দান্ত পাওয়ারপ্লে বোলিংয়ের সামনে পড়ে ইংল্যান্ড। এ সিরিজে প্রথম ৬ ওভারে ভারতের বোলারদের স্ট্রাইক রেট মাত্র ১০.৩—কোনো দ্বিপক্ষীয় সিরিজে যেটি তাদের সর্বনিম্ন। 

আগের ম্যাচে জস বাটলার শূন্যতে ফিরেছিলেন ভুবনেশ্বর কুমারের বলে। এবার ফিরলেন জেসন রয়, সেটিও ইনিংসের প্রথম বলেই। তৃতীয় ওভারে জস বাটলারকেও ফেরান ভুবনেশ্বর। তিনি ৫ বলে মাত্র ৪ রান করেছিলেন।

জীবন পাওয়া লিয়াম লিভিংস্টোনও সাজঘরে ফেরেন পাওয়ারপ্লের মধ্যেই। টিনি ৯ বলে ১৫ রান করেছেন এবং ৩টি ৪ চার মেরেছেন। ৬ ওভার শেষে বাটলারের দলের স্কোর ছিল ৩ উইকেটে ৩৬ রান।

এরপর একে একে ফেরেন হ্যারি ব্রুক, ডেভিড ম্যালান, স্যাম কুরানরাও। তিনজনের কেউই ৮৮.৮৮-এর ওপর স্ট্রাইক রেটে ব্যাটিং করতে পারেননি। হ্যারি ব্রুক করেছেন ৯ বলে ৮ রান। ডেভিড ম্যালান করেছেন ২৫ বলে ১৯ রান এবং তিনি ২ টি চার মেরেছেন। স্যাম করেছেন মাত্র ২ রান। 

অন্য পাশে মঈন আলী ছিলেন, ২১ বলে ৩৫ রান করে হার্দিক পান্ডিয়ার শিকার তিনি। এছাড়া ক্রিস জর্ডান, রিচার্ড গ্লিসন, ম্যাথু পার্কিনসন কেউই রান করতে পারেন নেই। শেষ দিকে ২২ বলে ৩৩ রান করে অপরাজিত ছিলেন ডেভিড উইলি, তবে তাঁর ইনিংস পরাজয়ের ব্যবধানই কমিয়েছে শুধু। ইংল্যান্ড এরপর গুটিয়ে যেতে বেশি সময় নেয়নি।

ভারতের হয়ে ভুবনেশ্বর ৩টি উইকেট নেন ১৫ রানে। ৩ ওভারে মাত্র ১০ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন রঙিন পোশাকে ফেরা বুমরা। যুজবেন্দ্র চাহালও ২ উইকেট নিয়েছেন। ১টি করে উইকেট পেয়েছেন পান্ডিয়া ও হার্শাল প্যাটেল।

ইংল্যান্ড বনাম ভারত এর স্কোরবোর্ড

ভারত – ১৭০/৮ (২০.০)

ইংল্যান্ড – ১২১/১০ (১৭.০)

ফলাফল – ভারত ৪৯ রানে জয়ী

প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ – ভুবনেশ্বর কুমার


ইংল্যান্ড বনাম ভারত 2nd T20I Highlights - 2


ইংল্যান্ড বনাম ভারত ম্যাচের একাদশ

ইংল্যান্ড  জস বাটলার (অধিনায়ক এবং উইকেটরক্ষক), ডেভিড মালান, জেসন রয়, হ্যারি ব্রুক, লিয়াম লিভিংস্টোন, স্যাম কুরান, মঈন আলি, ক্রিস জর্ডান, ডেভিড উইলি, রিচার্ড গ্লিসন, ম্যাথু পার্কিনসন
ভারত রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), ঋষভ পান্ত (উইকেটরক্ষক), সূর্যকুমার যাদব, বিরাট কোহলি, দিনেশ কার্তিক, হার্দিক পান্ডিয়া, হার্ষাল প্যাটেল, রবীন্দ্র জাদেজা, যশপ্রিত বুমরাহ, ভুবনেশ্বর কুমার, যুজবেন্দ্র চাহাল

আরো ব্লগ