আজকের ট্রেন্ডিং

আগামী চার বছরে সবচেয়ে বেশি ওয়ানডে খেলবে বাংলাদেশ

Bangladesh will play the highest number of ODIs in the next four years

টেস্ট, ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি। এই তিনটি ফরম্যাটের মধ্যে ওয়ানডে ক্রিকেটটাই বেশি ভালো খেলে বাংলাদেশ। এই ফরম্যাটে সাফল্যের পাল্লাটাও বেশ ভারী টাইগারদের। সাম্প্রতিক সময়ে তামিম ইকবালের নেতৃত্বে ধারাবাহিকভাবে পারফর্ম করে যাচ্ছে বাংলাদেশ। সবশেষ খেলা পাঁচটি সিরিজের সবকটি জিতেছে তারা।

প্রিয় ফরম্যাট নিয়ে আইসিসির ভবিষ্যৎ সূচিতে এবার দারুণ সুখবর পেয়েছে বাংলাদেশ। ফিউচার ট্যুর প্ল্যান (এফটিপি) অনুযায়ী আগামী চার বছরে সবচেয়ে বেশি ওয়ানডে ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে বাংলাদেশ। তামিমদের এই খবর নিশ্চিত করেছে খেলাধুলা ভিত্তিক জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ইএসপিএনক্রিকইনফো।

এফটিপি অনুযায়ী ২০২৩ থেকে ২০২৭ সাল পর্যন্ত চার বছরের ম্যাচ শিডিউল করা হয়েছে। যেখানে মোট ৫৯টি ওয়ানডে খেলবে বাংলাদেশ। ভারত, ইংল্যান্ড কিংবা অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বের বাঘা বাঘা দলগুলোও এতগুলো ম্যাচ খেলার সুযোগ পাচ্ছে না। এমনকি বাংলাদেশ বাদে ৫০টির বেশি ওয়ানডে খেলবে শুধু শ্রীলংকা (৫৮টি)।

এই চার বছরে টেস্ট এবং টি-টোয়েন্টি ম্যাচও নেহায়েত কম নয় বাংলাদেশের। ২০২৩ থেকে ২০২৭ সাল পর্যন্ত মোট ৩৪টি টেস্ট খেলবে টাইগাররা। একই সময়ে টি-টোয়েন্টি খেলবে ৫১টি। তিন ফরম্যাট মিলিয়ে এই সূচিতে বাংলাদেশের ম্যাচ সংখ্যা দাঁড়ায় ১৪৪টি।

আইসিসির সূচি অনুযায়ী আগামী চার বছরে সবচেয়ে বেশি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। ম্যাচের সংখ্যায় তাদের চেয়ে এগিয়ে আছে কেবল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বাংলাদেশের চেয়ে ২টি ম্যাচ বেশি খেলবে তারা। এছাড়া এই সূচির বাইরে দুই দেশের মধ্যে সমঝোতার ভিত্তিতে দ্বিপাক্ষিক সিরিজও খেলবে বাংলাদেশ।

আরো আজকের ট্রেন্ডিং